Home / জাতীয় / প্রিন্স মুসা বিন শমসেরের পুত্র এরশাদের উপদেষ্টা!

প্রিন্স মুসা বিন শমসেরের পুত্র এরশাদের উপদেষ্টা!

সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদকে সরকার আটক করেছে রেখেছে সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ)। তিনি নিজে কোন কিছু গণমাধ্যমে বলতে পারছেন না। এরশাদ গণমাধ্যমে কথা বলতে না পারায় জাতীয় পার্টির (জাপা) একেক নেতা, একেক রকম বক্তব্য দিচ্ছেন। এ জন্য এরশাদের একজন মুখপাত্র নিয়োগ করেছেন। এই মুখপাত্রই এখন গণমাধ্যম সামলাচ্ছেন। মুখপাত্রের নাম ববি হাজ্জাজ। তিনি আবার এরশাদের উপদেষ্টাও। হঠাৎ রাজনীতির আলোয় আসা ববি হাজ্জাজের আরেকটি পরিচয় রয়েছে, তিনি বাংলাদেশের প্রিন্সখ্যাত মুসা বিন শমসের ছেলে। মুসা বিন শমসের বাংলাদেশে একজন বির্তকিত ব্যবসায়ী। এই ব্যবাসায়ী আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য শেখ সেলিমের বেয়াই এই মুসা বিন শমসের।

সিএমএইচে কথিত অসুস্থ্য এরশাদের একমাত্র বৈধ মুখপাত্র হিসেবে ববি হাজাজের নাম উচ্চারণ করায় অনেকেই হতবাক হয়েছেন। কারণ রাজনীতির সাথে ববির কোন সম্পর্ক ছিলো না এর আগে।
আজ শনিবারও গণমাধ্যমকে ববি এরশাদের বক্তব্য জানিয়েছেন। ববি বলনে, নির্বাচনে না যাওয়ার সিদ্ধান্ত থেকে এতটুকু পিছ পা হননি সাবেক রাষ্ট্রপতি এরশাদ। জাতীয় পার্টির যে বা যারাই নির্বাচনে যাওয়ার জন্য তৎপরতা চালাচ্ছেন তাদের সঙ্গে দলের চেয়ারম্যানের কোনো কথা হয়নি বলেও দাবি করেন হঠাৎ প্রকাশ্যে আসা ববি।

অনেকেই মনে করছেন, ধনকুবের মুসা বিন শমসের পরিবারকে পাশে রাখতে চাইছেন সাবেক এই রাষ্ট্রপতি।

ব্যবসায়ী মুসা বিন শমসের বাংলাদেশের বাইরে বিভিন্ন দেশে প্রিন্স মুসা নামে পরিচিত। ১৯৯৪ সালে তিনি বৃটেনের লেবার পার্টিতে পাঁচ মিলিয়ন পাউন্ড দান করার প্রস্তাব দিয়ে আলোচনায় এসেছিলেন। কিন্তু বৃটেনের ভূমিপুত্র না হওয়ায় তার প্রস্তাবটি ফিরিয়ে দেয়া হয়েছিল।

তবে ধনকুবের বনের যাওয়ার পেছনে মুসার বিভিন্ন ধরনের অনৈতিক ব্যবসা নিয়ে অতীতে ব্যাপক সমালোচনা হয়েছে। অভিযোগ রয়েছে, অস্ত্র ও চোরাচালানসহ বিভিন্ন অনৈতিক ব্যবসা বাণিজ্যের বিশাল নেটওয়ার্ক আছে তার। এর আগে সুইস ব্যাংকে মুসার সাত বিলিয়ন ডলারের একউন্টও জব্দ করা হয়েছিল।

আজকের নিউজ আপনাদের জন্য নতুন রুপে ফিরে এসেছে। সঙ্গে থাকার জন্য আপনাদের ধন্যবাদ। - আজকের নিউজ