Home / আন্তর্জাতিক / সাবেক থাই প্রধানমন্ত্রী হত্যার দায়ে অভিযুক্ত

সাবেক থাই প্রধানমন্ত্রী হত্যার দায়ে অভিযুক্ত

থাইল্যান্ডের সাবেক প্রধানমন্ত্রী অভিজিত্ ভেজ্জাজিভাকে হত্যাকাণ্ডের দায়ে অভিযুক্ত করেছেন দেশটির একটি আদালত। তিন বছর আগে রাজধানী ব্যাংককে জনতার ওপর সামরিক অভিযানের দায়ে গতকাল তাকে অভিযুক্ত করেন আদালত। ২০১০ সালে অভিজিতের নেতৃত্বাধীন সরকারের বিরুদ্ধে লাল শার্ট বিক্ষোভকারীদের ওপর সামরিক অভিযানে ৯০ জনের বেশি নিহত এবং কয়েক হাজার লোক আহত হয়। রয়টার্স, এএফপি।
অভিজিতের সমর্থকরা বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ইংলাক সিনাওয়াত্রার বিরুদ্ধে ব্যাপক বিক্ষোভ দেখিয়ে যখন দেশে অচলাবস্থা সৃষ্টি করেছে তখন আদালতের এ রায় ঘোষিত হল। থাইল্যান্ডের অ্যাটর্নি জেনারেলের দফতরের মুখপাত্র নানথাসাক পুনসুক বলেছেন, আমরা তাকে (অভিজিত্) অভিযুক্ত করেছি। আদালত তার বিরুদ্ধে মামলা পরিচালনা করতে সম্মত হয়েছে। গতকাল আদালতের রুদ্ধদ্বার কক্ষে শুনানির পর এ সিদ্ধান্ত ঘোষিত হয়।
২০১০ সালে ব্যাংককের রাস্তায় ইংলাকের ভাই ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী থাকসিন সিনাওয়াত্রার সমর্থকদের সঙ্গে নিরাপত্তা বাহিনীর ব্যাপক সংঘর্ষে অন্তত ৯০ ব্যক্তি নিহত ও প্রায় দুই হাজার মানুষ আহত হয়েছিল। ‘লাল শার্ট’ আন্দোলনকারী হিসেবে পরিচিত থাকসিনের সমর্থকদের দমন করতে নিরাপত্তা বাহিনী সে সময় তাজা গুলি ব্যবহার করে। আজ ডেমোক্র্যাট পার্টির নেতা অভিজিেক যখন আদালতে আনা হয় তখন লাল শার্ট আন্দোলনকারীদের একটি দল তাকে উদ্দেশ করে ‘খুনি’ বলে স্লোগান দেয়। এ সময় আদালত চত্বরে গণমাধ্যম কর্মীরা উপস্থিত থাকলেও ভেজ্জাজিভা তাদের সঙ্গে কথা বলেননি। সরকারি আইনজীবীরা ভেজ্জাজিভা ও তার উপ-প্রধানমন্ত্রী সুদিপ থাগসুবানের বিরুদ্ধে নিরাপত্তা বাহিনীর মাধ্যমে হত্যা ও হত্যা প্রচেষ্টার অভিযোগ এনেছেন। তবে অভিজিত্ ভেজ্জাজিভা তার বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।

আজকের নিউজ আপনাদের জন্য নতুন রুপে ফিরে এসেছে। সঙ্গে থাকার জন্য আপনাদের ধন্যবাদ। - আজকের নিউজ