Home / আন্তর্জাতিক / উপসাগরীয় অঞ্চলে নতুন অস্ত্রবিক্রির রূপরেখা যুক্তরাষ্ট্রের

উপসাগরীয় অঞ্চলে নতুন অস্ত্রবিক্রির রূপরেখা যুক্তরাষ্ট্রের

উপসাগরীয় অঞ্চলে নতুন অস্ত্র বিক্রির রূপরেখা তৈরির পরিকল্পনা করেছেন মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী চাক হেগেল। এ পরিকল্পনার আওতায় রয়েছে ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা এবং অন্যান্য অস্ত্র। যুক্তরাষ্ট্র এসব অস্ত্র তাদের বন্ধু রাষ্ট্রের কাছে বিক্রি করবে। দু’দিনের ব্যক্তিগত সফরে শনিবার হেগেল বাহরাইনের রাজধানী মানামায় এক নিরাপত্তা সম্মেলনে এ কথা বলেন। -খবর টাইমস অব ইন্ডিয়ার।

মূলত ইরানকে ঘায়েল করার জন্যই যুক্তরাষ্ট্রের এ পরিকল্পনা। পরিকল্পনা মোতাবেক তারা ইরানের ব্যালেস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রকে প্রতিহত করতে উপসাগরীয় অঞ্চলে তাদের মিত্র দেশকে এসব অস্ত্র দিবে; যাতে করে ইরানের সঙ্গে একটা সাম্যতা ফিরিয়ে আনা যায়। কারণ যুক্তরাষ্ট্র অনেক আগে থেকেই বলে আসছে ইরান নানা অজুহাতে পারমাণবিক কর্মসূচি চালিয়ে যাচ্ছে। যদিও সমপ্রতি ছয় বিশ্বশক্তির সঙ্গে ইরানের এ বিষয়ে একটা সমঝোতা চুক্তি হয়েছে। তারপরেও আন্তর্জাতিক রাজনীতিতে যেহেতু কোন কিছু স্থায়ী নয়, সে কারণে যুক্তরাষ্ট্র তারা তাদের নিয়ম মোতাবেক কাজ চালিয়ে যাচ্ছে। উপসাগরীয় অঞ্চলের নেতৃবৃন্দের সঙ্গে বৈঠককালে হেগেল মার্কিন ঘাঁটির কাছে ইউএসএস পনস যুদ্ধজাহাজের প্রসঙ্গ টেনে বলেন, ইরানের সঙ্গে সামপ্রতিক সময়ে পারমাণবিক বিষয়ে যে সমঝোতা হয়েছে, এতে করে তাদের বাজেটের ওপর চাপ পড়বে। এর ফলে আফগানিস্তানেও তাদের খরচের ক্ষেত্রে প্রভাব ফেলবে। হেগেল বলেন, পেন্টাগনও এ অঞ্চলে আমাদের বন্ধু দেশের সক্ষমতা তৈরি করার ওপর জোর দেয়। যাতে করে এখানে আমাদের শক্তিশালী সামরিক উপস্থিতি মজবুত হয়। তিনি বলেন, রাষ্ট্রসমূহ তখনই শক্তিশালী রাষ্ট্রে পরিণত হয়, যখন একটা নির্দিষ্ট হুমকি নিয়ে তারা একত্রে কাজ করে।

আজকের নিউজ আপনাদের জন্য নতুন রুপে ফিরে এসেছে। সঙ্গে থাকার জন্য আপনাদের ধন্যবাদ। - আজকের নিউজ