Home / খেলা / বহিষ্কৃত জিমি ওমানে খেলছেন

বহিষ্কৃত জিমি ওমানে খেলছেন

গেল আগস্টে এশিয়া কাপ হকিতে বড় প্রত্যাশা নিয়ে খেলেও আশানুরূপ ফল হয়নি। সপ্তম হয়ে ফিরে আসতে হয়েছিল বাংলাদেশ দলকে। ওমানের কাছে ৪-২ গোলে হারটি মেনে নিতে পারেনি সংশ্লিষ্টরা। এশিয়া কাপের ব্যর্থতা নিয়ে তদন্ত কমিটি হয়েছিল। সেখানে জিমি-জাহিদ-পিন্টু ও রানাদের বড় রকমের শাস্তি দেওয়া হয়। শাস্তিপ্রাপ্তরা এখনও নিজেদের দোষ স্বীকার করেননি। আর সবচেয়ে বড় বিষয় হল-রাসেল মাহমুদ জিমি ও কামরুজ্জামান রানা এখন ওমানে। তারা স্থানীয় লিগ খেলতে গেল ১০ ডিসেম্বর সেখানে গিয়েছেন। জনশ্রুতি রয়েছে-এশিয়া কাপে ওমান ম্যাচের আগে জিমি-রানারা সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সঙ্গে কেনাকাটা করেছেন। একসময় জার্মানির কোচ অলিভার কার্টজ ছিলেন বাংলাদেশের দায়িত্বে। গেরহার্ড পিটারের অধীনে। সেই তিনি এখন ওমানের কোচ। মূলত তার সঙ্গে পরিচয়ের সুবাদে ওমানে খেলতে যাওয়া। ম্যাচে জিমিদের পারফরম্যান্স ছিল নেতিবাচক। মাঠে দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে খেলতে দেখা গেছে। এ দু’জন যে ওমানের লিগে খেলতে যাবেন তখনই নিশ্চিত হয়ে যায়।
কাল বিজয় দিবসের ফাইনালে এসে জিমির বাবা আবদুর রাজ্জাক সোনা মিয়া বলেছেন, ‘জিমি এখন ওমানে। সেখানকার লিগ খেলছে। ওখানে পাঁচ-ছয়টি ম্যাচ খেলবে। ও আসছে এ মাসের শেষে।’ সতীর্থ ইমরান হাসান পিন্টু বলেছেন, ‘ওমানে তো বেশি ম্যাচ খেলার সুযোগ নেই। ১০ তারিখ গিয়ে তাই ২৭ ডিসেম্বর আসতে হচ্ছে জিমিকে।’
তবে হকি ফেডারেশন এ বিষয়ে বেশ নড়েচড়ে বসেছে। তাদের কথা হল-সাসপেন্ডকৃত খেলোয়াড়রা কোথাও খেলতে পারে না। সেটা দেশে কিংবা বিদেশে। ফেডারেশন সম্পাদক খাজা রহমতউল্লাহ বলেছেন, ‘জিমিরা তো দেশের বাইরে খেলতেই পারে না। তাদের তো নিষিদ্ধ করা হয়েছে। আমরা এশিয়া ও আন্তর্জাতিক ফেডারেশনে চিঠি দিয়ে বিষয়টি জানিয়ে দিয়েছি। এখন তারাই সিদ্ধান্ত নেবে।’

আজকের নিউজ আপনাদের জন্য নতুন রুপে ফিরে এসেছে। সঙ্গে থাকার জন্য আপনাদের ধন্যবাদ। - আজকের নিউজ