Home / অর্থনীতি ও বানিজ্য / অবসরের জন্য প্রস্তুতি নিবেন যেভাবে

অবসরের জন্য প্রস্তুতি নিবেন যেভাবে

অনেকেই তরুণ বয়সে অবসরের জন্য চিন্তা না করে বর্তমান নিয়ে খুশি থাকেন। তাদের এ মনোভাব আসে অবসর জীবনের শেষপ্রান্তে এবং বর্তমান অবস্থা থেকে যা অনেক দেরিতে উপস্থিত হয়। কিন্তু অবসরের জন্য টাকা জমানোর সবচেয়ে উৎকৃষ্ট সময় তরুন বয়স। প্রয়োজনে খুব অল্প পরিমান টাকা দিয়ে জমানো শুরু করুন, সময়ে সময়ে তা নিজে থেকেই বৃদ্ধি পাবে। নিয়মিত কিছু পদ্ধতি মেনে চললেই এটা সম্ভব হবে।

নিজের অবসর সময়ের প্রয়োজন সম্পর্কে জানা
প্রথমেই আপনাকে আপনার প্রয়োজনগুলো সম্পর্কে জানতে হবে। যদিও তার অনেকটাই নির্ভর করবে আপনার তখনকার জীবনযাত্রার উপর। তবে এ সম্পর্কে খুব বেশী চিন্তা না করাই ভালো, এতে নিজের ভিতরে উদ্বিগ্নতা তৈরি হয়। এইটুক মনে রাখবেন আপনি এখনো আপনার অবসরের থেকে অনেক দূরে অবস্থান করছেন। এবং আপনার হাতে যথেষ্ট সময় আছে আপনার ভবিষ্যৎ গুছিয়ে নিতে।

এখন থেকেই জমানো শুরু করুন
আপনার প্রয়োজনগুলো সম্পর্কে জানা হলে সেই অনুযায়ী টাকা জমাতে থাকেন। এবং চেষ্টা করুন প্রতি মাসে এমন পরিমান টাকা জমাতে যাতে বছর শেষে আপনার এক মাসের বেতনের পরিমানের টাকা জমে। আপনার বয়স ৩৫ বছর পর্যন্ত এমন করে টাকা জমাতে থাকুন। অবশ্য চাইলে এর বেশিও জমাতে পারেন। ৪৫ বছর বয়স পর্যন্ত বছরে বর্তমান বেতনের ৩ গুণ করে ৫৫ বছর বয়স পর্যন্ত বছরে বর্তমান বেতনের ৫ গুণ করে টাকা জমা করুন। এতেই মূলত আপনার প্রয়োজনের অনেকাংশ জমা হয়ে যাবে।

খরচ কমানোর অভ্যাস করুন
আপনার প্রতিদিনের খরচ থেকে একটু করে টাকা জমানো শিখুন। যেমন আপনি প্রতিদিন বাসার বাইরে খেয়ে থাকেন, এখন থেকে খাবার আপনি বাসা থেকে নিয়ে আসুন, এতে আপনার টাকাও বাঁচবে এবং সেই সাথে আপনার শরীরও ভালো থাকবে। আপনার এ জমানোর অভ্যাস আপনাকে এখন তো সুবিধা দিবেই, অবসরের সময়ও আপনাকে নির্দিষ্ট পরিমান টাকায় চলতে সাহায্য করবে।

স্টক, বন্ড ও এন্যুইটিতে বিনিয়োগ করুন
অবসরে নিয়মিত টাকা আসার সবচেয়ে ভালো উপায় হল স্টক, বন্ড ও এন্যুইটিতে বিনিয়োগ করা। আর এ সংক্রান্ত ঝুঁকি দূর করার জন্য আপনাকে এক জায়গায় বেশী টাকা বিনিয়োগ না করে, অল্প অল্প করে অনেক জায়গায় বিনিয়োগ করুন। এতে প্রতি মাসে আপনার হাতে নির্দিষ্ট পরিমান টাকা আসবে। যার ফলে আপনার অবসরের সময়ের অর্থনৈতিক সমস্যার সমাধান ঘটবে।

আজকের নিউজ আপনাদের জন্য নতুন রুপে ফিরে এসেছে। সঙ্গে থাকার জন্য আপনাদের ধন্যবাদ। - আজকের নিউজ