Home / জাতীয় / মন্ত্রিসভায় শপথের ডাক পেলেন যারা

মন্ত্রিসভায় শপথের ডাক পেলেন যারা

দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সংসদ সদস্য হিসেবে বিজয়ীরা এরই মধ্যে শপথ নিয়েছেন। রোববার তাদের মধ্য থেকে অর্ধশত মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী ও উপ-মন্ত্রী নিয়ে গঠিত হচ্ছে সরকার। মন্ত্রিপরিষদ গঠনের জন্য শনিবার থেকে শপথের ডাক শুরু হয়েছে তাদের।

এদের মধ্যে শনিবার মধ্যরাত পর্যন্ত বাংলানিউজ প্রায় ২০ জনের শপথের আমন্ত্রণের বিষয়টি নিশ্চত হয়েছে।

রোববার বিকেল সাড়ে ৩টায় বঙ্গভবনের দরবার হলে নতুন মন্ত্রিসভার সদস্যরা শপথ নেবেন। রাষ্ট্রপতি নতুন মন্ত্রীদের শপথ পড়াবেন বলে জানিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ মোশাররাফ হোসাইন ভূইঞা।

আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাই তৃতীয়বারের মতো প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন। শেখ হাসিনাকে প্রধান করে মন্ত্রিসভার তালিকায় সম্মতি দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি।

শনিবার এক প্রেস ব্রিফিংয়ে কারো নাম না বললেও মন্ত্রিপরিষদ সচিব রাষ্ট্রপতির সম্মতিদানের বিষয়টি সাংবাদিকদের নিশ্চিত করেছেন।

যারা মন্ত্রী হচ্ছেন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে তাদের আমন্ত্রণ জানানো হচ্ছে। নতুন-পুরাতনের সমন্বয়ে মন্ত্রিসভা গঠিত হচ্ছে বলে জানায় মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ নেতাদের মধ্যে আমির হোসেন আমু, তোফায়েল আহমেদ, মোহাম্মদ নাসিমের আমন্ত্রণের বিষয়টি নিশ্চিত হয়েছে বাংলানিউজ।

এছাড়াও মাল আবদুল মুহিত, মতিয়া চৌধুরী, ওবায়দুল কাদের, সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম, আনোয়ার হোসেন মঞ্জু, রাশেদ খান মেনন, নুরুল ইসলাম নাহিদ, হাসানুল হক ইনু, শাহরিয়ার আলম যে আমন্ত্রিত হয়েছেন- তাও নিশ্চিত হওয়া গেছে।

জাতীয় পার্টির মুজিবুল হক চুন্নু ও মশিউর রহমান রাঙ্গার আমন্ত্রণের বিষয় জানা গেছে দলীয় সূত্রে। আনিসুল ইসলাম মাহমুদ ও জিয়াউদ্দিন বাবলুও হতে পারেন মন্ত্রী।

মতিয়া চৌধুরী বাংলানিউজকে বলেন, মন্ত্রিপরিষদ সচিব তাকে ফোন করে শপথ নেওয়ার আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।

মোহাম্মদ নাসিম বাংলানিউজকে মন্ত্রিপরিদ বিভাগ থেকে ফোন পাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। নিশ্চিত করেছেন রাশেদ খান মেনন এবং ওবায়দুল কাদেরও।

আওয়ামী লীগের একজন সভাপতি মণ্ডলীর সদস্য আবুল মাল আব্দুল মুহিত, তোফায়েল আহমেদ ও নুরুল ইসলাম নাহিদের বিষয়টিও নিশ্চিত করেছেন।

এছাড়া সচিবালয় সংশ্লিষ্ট বিভাগ ও আওয়ামী লীগ সূত্র জানায়, ব্যারিস্টার শফিক আহমেদ, ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন, খন্দকার মোশাররফ হোসেন, আবদুল লতিফ সিদ্দিকী, শাহজাহান খান, অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম মন্ত্রিসভায় স্থান করে নিতে পারেন।

আরও থাকতে পারেন খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন, মির্জা আজম, মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া, আসাদুজ্জামান নূর, নাজমুল হাসান পাপন, শেখ ফজলুল করিম সেলিম।

এদিকে সুরঞ্জিত সেন গুপ্ত, মহীউদ্দীন খান আলমগীর, শামুসল হক টুকু জাহাঙ্গীর কবির নানক শনিবার রাত পর্যন্ত ডাক পাননি বলে বাংলানিউজকে নিশ্চিত করেছেন।

বাদ পড়ার কথা শোনা যাচ্ছে দীপু মনির নামও।

নতুন মন্ত্রিসভা শপথ নেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে বর্তমান নির্বাচনকালীন মন্ত্রিসভা বিলুপ্ত হবে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব।

আজকের নিউজ আপনাদের জন্য নতুন রুপে ফিরে এসেছে। সঙ্গে থাকার জন্য আপনাদের ধন্যবাদ। - আজকের নিউজ